একদিনের ব্যবধানেই সেঞ্চুরি ছাড়াল পিয়াজ

ভারত সরকার আগে কোন কিছু না জানিয়েই হঠাৎ পেয়াজ রপ্তানি বন্ধ করে দেয়। তাই বাংলাদেশে পেয়াজের দাম একদিনের ব্যবধানে প্রায় দ্বিগুণ হয়েছে। দেশের খুচরা বাজারে পিয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৯০-১০০ টাকা। তবে পাড়া-মহল্লার দোকান গুলোতে হাত ঘুরে বিক্রি হচ্ছে ১১০-১২০ টাকা। পিয়াজের বাড়তি দামে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন ক্রেতা ও বিক্রেতারা। ক্রেতাদের অভিযোগ, বাজারে পিয়াজের সংকট না থাকলেও ইচ্ছে করেই দাম বাড়ানো হয়েছে। তবে বিক্রেতাদের দাবি, বাজারে পিয়াজের সংকটে দাম বেড়েছে।

এদিন রাজধানীর রামপুরা, মালিবাগ, মালিবাগ রেলগেট বাজার, শান্তিনগর, সেগুনবাগিচা, ফকিরাপুল, মতিঝিল টিঅ্যান্ডটি কলোনি বাজার ও খিলগাঁও কাঁচা বাজারে দেশি পিয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৯৮ থেকে ১০০ টাকা প্রতি কেজি, আর ছোট আকৃতির দেশি পিয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৯০ টাকা প্রতি কেজি। অথচ দু’দিন আগে এসব পিয়াজ বিক্রি হয়েছিল প্রতি কেজি ৭০ টাকায় আর ছোট পিয়াজ বিক্রি হয়েছিল ৬০ থেকে ৬৫ টাকায়।

এছাড়া পাড়া-মহল্লার দোকান গুলোতে হাত ঘুরে ঘণ্টায় ঘণ্টায় বাড়ছে পিয়াজের দাম। মহল্লার দোকানে খুচরা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে ১১০ থেকে ১২০ টাকা।

তবে ভারতীয় পিয়াজের দাম বেড়েছে কেজিতে ৩০ টাকা পর্যন্ত। বর্তমানে আমদানি করা পিয়াজ এসব বাজারে বিক্রি হচ্ছে প্রতি কেজি ৮০ টাকায়।

গত বছরও ভারত হুট করে পিয়াজ রপ্তানি বন্ধ ঘোষণা করেছিল। এতে বাংলাদেশে পিয়াজের দাম বেড়েছিল হু হু করে। সেসময় খুচরা বাজারে রেকর্ড ৩০০ টাকা কেজি দরে পিয়াজ বিক্রি হয়েছে। এবার পিয়াজ রপ্তানি বন্ধ ঘোষণার পরপরই দেশের খুচরা বাজারে দাম বাড়তে শুরু করেছে।

About News24

Check Also

ক্যাসিনো সম্রাট মানিলন্ডারিং মামলায় গ্রেফতার

ঢাকা মহানগর যুবলীগ দক্ষিণের বহিষ্কৃত সভাপতি ইসমাইল হোসেন চৌধুরী সম্রাট ওরফে ক্যাসিনো সম্রাট এবং তার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *